শনিবার   ১৭ আগস্ট ২০১৯   ভাদ্র ২ ১৪২৬   ১৫ জ্বিলহজ্জ ১৪৪০

৩৭৫

চাদর মুড়ি দিয়ে আগাম শীতের  আগমনি মেহেরপুরে

নিজস্ব প্রতিবেদক 

প্রকাশিত: ৩ ডিসেম্বর ২০১৮  

 


দুর্বাঘাসের মাথায় শিশির বিন্দু ও সন্ধ্যা থেকে ভোর পর্যন্ত হালকা কুয়াশা জানান দিচ্ছে প্রকৃতিতে শীতের আগমনী বার্তা। পৌষ-মাঘ দুই মাস শীতকাল হলেও মেহেরপুরে শীতের প্রদুর্ভাব দেখা গেছে অগ্রাহনের শুরুতেই। এই জেলার শ্রমজীবি মানুষ চাদরমুড়ি ক্ষেত খামারে কাজ করতে দেখা গেছে।

বিকেল থেকে শীতল হাওয়া আর সন্ধ্যার পর থেকে শুরু হয়ে ভোরের হালকা কুয়াশায় সকালের সূর্য উঠার পর দীর্ঘসময় পর্যন্ত গাছ গাছালিতে জমে থাকা শিশির বিন্দু বলে দিচ্ছে শীত এসেছে। শীত মানে অনেকের কাছে আনন্দের। আর কারও কাছে যন্ত্রণার। তবে বেশিরভাগ মানুষ শীত মওসুমকেই পছন্দের সময় হিসেবে গণ্য করেন। 

শীতের সময় ভ্রমণপ্রেমীরা বিভিন্ন জেলার পর্যটন এলাকায় ঘুরে বেড়িয়ে থাকেন। তবে শীত মানে ভাপা পিঠার মধুর গন্ধ। শীত মানে সকালে মিষ্টি খেজুর রসের সঙ্গে মিতালী। শীতের সময় যতসব রুচিশীল খাবারের আয়োজন চলে গ্রাম কিংবা শহরে। 

আবহাওয়া অফিস সূত্রে জানা গেছে, গত কয়েকদিন থেকে সকাল ও সন্ধ্যায় বাতাসের তাপমাত্রা কমে আসায় সকালের দিকে শীত অনুভূত হচ্ছে। ভোর রাতের দিকে গরম কাপড় গায়ে জড়াতে হচ্ছে লোকজনকে। এতে করে সর্দি, কাশি ও জ্বরে আক্রান্ত হচ্ছে শিশুরা। বিশেষ করে বৃদ্ধদের নিয়ে বিপাকে পড়েছেন পরিবারের সদস্যরা। হাসপাতালে প্রতিদিন বাড়ছে সর্দি জ্বর ও কাশিতে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। ঋতু বৈচিত্রের কারণে এ জনপদের প্রকৃতিতে আগাম শীতের আগমন ঘটেছে।

কুয়াশার বুক চিরে ভোরের সূর্যোদয়। বিকেলের নীল আকাশের ক্যানভাসে থোকা থোকা সাদা মেঘের ভেলা। অগ্রাহনেই শীতের আগমনী বার্তা।  গত কয়েকদিন ধরেই সকাল থেকে ঘন কুয়াশার চাদরে ঢাকা থাকছে চারপাশ। সঙ্গে থাকছে হিমালয় ছুঁয়ে আসা বাতাসের প্রবাহ। পৌষ ও মাঘ মাস আসতে এখনও এক মাস বাকি থাকলেও দিন গড়ানোর সঙ্গে সঙ্গে বেড়েই চলছে শীতের অনুভূতি। আবহাওয়াবিদরা বলছেন, সূর্যালোকের আপাতন রশ্মি উলম্ব থেকে তির্যক এবং উত্তরীয় ঠান্ডা বায়ু প্রবাহের কারণে দিনের বেলা হিমহাওয়া অনুভূত না হলেও বিকেল থেকে শীতল হাওয়া বইছে। আর এরই প্রভাবে সকালে ঘাসের ডগায় শিশির বলে দিচ্ছে শীত হয়তো এবার একটু আগেই চলে এসেছে। 

চুয়াডাঙ্গা আবহাওয়া অধিদপ্তর কর্মকর্তারা জানিয়েছে, এবারের শীত আগাম অনুভুত হওয়ার কারণে মেরেহপুর চুয়াডাঙ্গা জেলার মানুষেরা একটু হলেও সমস্যার পড়বেন। গত শুক্রবার সকাল ৫টায় তাপমাত্রা ছিল ২৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এই মাত্রা দিনে দিনে কমতে থাকবে। আগামী কয়েক সপ্তাহ শীতে মাত্রা বাড়বে।


 

মেহেরপুর বার্তা
মেহেরপুর বার্তা
এই বিভাগের আরো খবর